কোভিড ১৯: মিডিয়া রিলিজ

২৫ মার্চ, ২০২০ । বুধবার, ১১ই চৈত্র ১৪২৬ বঙ্গাব্দ


করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত কোভিড-১৯ রোগীর চিকিৎসায় রোশ কর্তৃক প্রতিষেধক আবিষ্কার হয়েছে শীর্ষক একটি তথ্য সাম্প্রতিক সময়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ও কিছু গনমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের একটি সূত্র উল্লেখপূর্বক সংবাদটি একটি ছবিসহ বিস্তৃতি লাভ করেছে এবং রোশ বাংলাদেশ এর দৃষ্টিগোচর হয়েছে। বস্তুত এটি একটি অসত্য তথ্য এবং এ ধরনের কোন আবিষ্কারের সংবাদ এখনো প্রকাশিত হয়নি। যুক্তরাষ্ট্রে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এর মিডিয়া ব্রিফিং চলাকালীন সময়ে কোভিড-১৯ রোগী শনাক্তকরণে রোশ এর একটি যন্ত্র বা ডায়াগনস্টিক টুলের জরুরি ব্যবহারের অনুমোদন সংক্রান্ত সংবাদের বিকৃত এবং বানোয়াট তথ্য প্রচার হচ্ছে।

করোনা ভাইরাসের মহামারী মোকাবেলায় কোভিড-১৯ চিকিৎসায় এপর্যন্ত কোন ঔষধ বা প্রতিষেধক উদ্ভাবিত হয়নি। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা কিংবা অন্য কোন বৈশ্বিক সংস্থা কোভিড-১৯ চিকিৎসায় এখনো কোন ঔষধ কিংবা প্রতিষেধক এর ব্যবহার অনুমোদন করেনি। পরীক্ষামূলক পর্যায়ে কিছু ঔষধের ব্যবহার হলেও তা এখনো সর্বজনীন ব্যবহারের অনুমোদন পায়নি। তাই, এধরনের তথ্য এই সংকটের মাঝে বিভ্রান্তি ছড়াবে এবং চিকিৎসাসেবায় বিঘ্ন ঘটানোর সুযোগ সৃষ্টি করবে।

বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া করোনা ভাইরাসের মহামারী ইতিমধ্যে ব্যপক প্রাণহানির কারন হয়ে দাড়িয়েছে, একই সাথে সামাজিক, অর্থনৈতিক এবং রাষ্ট্রীয় ব্যবস্থায় এক বিরূপ প্রভাব পড়তে শুরু করেছে। এরকম সংকটকালীন সময়ে সঠিক তথ্যের ব্যবহার ও প্রচার অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

উদ্ভূত পরিস্থিতিতে সারা বিশ্বের ন্যায় বাংলাদেশেও এক সংকট সৃষ্টি করেছে এবং এই অভূতপূর্ব সংকটে দেশ এক ক্রান্তিকালীন সময় পার করছে। এই অবস্থায় স্বাস্থ্য সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান হিসেবে রোশ বাংলাদেশ সরকার এবং এদেশের মানুষের পাশে দাঁড়ানোর বিষয়ে প্রতিজ্ঞাবদ্ধ এবং উদ্ভূত পরিস্থিতিতে সম্মিলিতভাবে কাজ করার বিষয়ে সদিচ্ছা ব্যক্ত করছে। যেকোন পরিস্থিতিতে রোশ রোগীর চিকিৎসাকে প্রাধান্য দিয়ে থাকে এবং সেলক্ষ্যে সর্বোচ্চ চেষ্টার বিষয়ে প্রতিজ্ঞাবদ্ধ থাকে।


রোশ এর পরিচিতিঃ

বিশ্বে ঔষধ এবং রোগ শনাক্তকরণ যন্ত্র উদ্ভাবনকারী একটি অগ্রগামী প্রতিষ্ঠান হল রোশ যার মূল লক্ষ্য বিজ্ঞানের অগ্রযাত্রার মাধ্যমে মানুষের জীবনমানের উন্নয়ন সাধন করা। একই ছাদের নিচে ঔষধ এবং রোগ শনাক্তকরণ যন্ত্র উদ্ভাবনের যৌথ শক্তি রোশকে ব্যক্তিকেন্দ্রিক স্বাস্থ্যসেবায় নেতৃস্থানীয় করেছে যার মূল অভিপ্রায় হল প্রতিটি রোগীকে সর্বোত্তম উপায়ে সঠিক সময়ে চিকিৎসাসেবা পৌছে দেয়া। ১৮৯৬ সালে প্রতিষ্ঠিত হওয়া সুইজারল্যান্ডভিত্তিক এই প্রতিষ্ঠান রোগ প্রতিরোধ, শনাক্ত এবং চিকিৎসাসেবা উদ্ভাবনের মাধ্যমে সমাজে টেকসই অবদানে নিয়োজিত। চিকিৎসাসেবায় উদ্ভাবন যেন সকল রোগীর চিকিৎসাসেবার আওতায় আসে সেজন্য রোশ সংশ্লিষ্ট অংশীদারদের সাথে একসাথে কাজ করে। রোশ উদ্ভাবিত ত্রিশটিরও অধিক ঔষধ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার ‘এসেন্সিয়াল মেডিসিন লিস্ট’ এর অন্তর্ভুক্ত হয়েছে যার মধ্যে রয়েছে জীবন রক্ষাকারী এন্টিবায়োটিক, এন্টি-ম্যালারিয়া এবং ক্যান্সারের ঔষধ। বাংলাদেশে রোশ গত তিন দশকেরও অধিক সময় ধরে সেবা দিয়ে আসছে এবং ভবিষ্যতেও এ সেবা অব্যাহত রাখার বিষয়ে দৃঢ় প্রতিজ্ঞাবদ্ধ।


এসংক্রান্ত তথ্য ও ভবিষ্যৎ অনুসন্ধানের জন্য নিন্মোক্ত ঠিকানায় যোগাযোগের বিশেষ অনুরোধ করা যাচ্ছে –
পলিসি এন্ড কমিউনিকেশন
রোশ বাংলাদেশ লিমিটেড
ইমেইলঃ bangladesh.communication@roche.com



Covid-19: Media Release

25th March, 2020


An information has gone viral in social media and few other mass media referring a news of invention of vaccine for Covid-19 patients who are affected by Corona Virus. Mentioning the reference of USA the news has been spread with a photo which has come to the attention of Roche Bangladesh. Basically this is a fake news and there is no publication of such news as of today. USA President Donald Trump has declared a news of emergency use approval of a diagnostic tool of Roche for Covid-19 detection and this news has been fabricated and shared by many.

Till now there is no invention of any medicine or vaccine to treat Covid-19 and fight corona pandemic. World Health organization or any other global organization did not approve any medicine or vaccine yet to treat Covid-19 patients. Few medicines are being used as part of clinical trials which are not approved for the mass treatment. Thus, these fake news will mislead the people amid this crisis and this might hamper the treatment.

Corona virus has already become the reason of thousands of deaths globally, at the same time this has started negative impact on societies, economy and state system. During such crisis, right use of information and publication are very important.

Due to the global pandemic, Bangladesh is also experiencing a crisis and now country is going through a critical time. During this crisis, Roche Bangladesh as healthcare service provider commits to stand beside the government and the people of this country. In any situation Roche prioritize the patient’s need and commit to work with best effort.


About Roche:

Roche is a global pioneer in pharmaceuticals and diagnostics focused on advancing science to improve people’s lives. The combined strengths of pharmaceuticals and diagnostics under one roof have made Roche the leader in personalised healthcare – a strategy that aims to fit the right treatment to each patient in the best way possible. Roche, which was founded in 1896 and based in Switzerland, continues to search for better ways to prevent, diagnose and treat diseases and make a sustainable contribution to society. The company also aims to improve patient access to medical innovations by working with all relevant stakeholders. More than thirty medicines developed by Roche are included in the World Health Organization Model Lists of Essential Medicines, among them life-saving antibiotics, antimalarials and cancer medicines. Roche has served Bangladesh since last three decades and commits to continue the effort for the patients.


For relevant query and future communication please contact the following person –
Policy and Communication
Roche Bangladesh Limited
Email: bangladesh.communication@roche.com